• মধুখালীতে নির্বাচনী রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ দাখিল

    গত ১৬ এপ্রিলমধুখালী উপজেলার ৪টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচিত চেয়ারম্যান,সংরক্ষিত ও সধারন সদস্যসহ নির্বাচিতদের বিজয়ী ঘোষনা করা হয়েছে ।১৬ এপ্রিল উপজেলার কামালদিয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৩নং ওয়ার্ড এর সদস্য প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মোঃ বাবলু খানকে ৫ ভোটের ব্যবধানে বিজিত ঘোষনা করা হয়। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে নিজেকে বিজয়ী ঘোষনা ব্যালট পেপার পূনঃ গননার দাবীতে নির্বাচনে দায়ীত্ব প্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলা প্রকৌশলী ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মোঃ রফিকুল ইসলাম ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ আজিজুল ইসলামের কাছে লিখিত অভিযোগপত্র দাখিল করেছেন। প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মোঃ বাবলু খান (প্রতিক মোরগ) এর অভিযোগ সুত্রে জানাযায় ১৬ এপ্রিল ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রাপ্ত ফলাফলপত্রে তাকে ৪১৪ প্রাপ্ত এবং প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীকে ৪১৯ ভোট প্রাপ্ত হওয়ায় ৫ ভোটে বিজয়ী ঘোষনা দেওয়া হয় কিন্ত ফলাফলপত্রে বাবলু খানের মোরগ প্রতিকে কথায় লেখা হয় চারশত চব্বিশ। নির্বাচন কেন্দ্রে দায়ীত্ব প্রাপ্ত প্রিজাইডিং কর্মকর্তা মোঃ দেলোয়ার হোসেনকে ভোট পূনঃ গননার দাবী করলেও তিনি সেটা না করে ঘোনা না দিয়েই উপজেলা সদরে ফিড়ে আসেন। এ ব্যাপারে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) মোঃ দেলোয়ার হোসেনকে তার মোবাইলে জানতে চাইলে তিনি বলেন কোন প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীই ভোট পূনঃ গননার দাবী করেন নাই। কেউ যদি দাবী করতেন তাহলে পূনঃ গননা করতে আমার অসুবিধা কোথায় ? আমি অবশ্যই পূনঃ গননা করতাম ।

  • কৃষক লীগের ৪৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন

    দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে কৃষক লীগের ৪৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী যথাযথভাবে পালিত হয়। গতকাল বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় ফুলবাড়ী উপজেলা কৃষক লীগের ৪৫ তম প্রতিষ্ঠা বাষির্কী পালনে সভাপতিত্ব করেন কৃষক লীগের ফুলবাড়ী শাখার সভাপতি হাজি মিজানুর রহমান। কৃষক লীগের ৪৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী আলহাজ্ব এ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার (এমপি)। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ হায়দার আলী শাহ, সাধারণ সম্পাদক মোঃ মুশফিকুর রহমান বাবুল। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কৃষক লীগের ফুলবাড়ী শাখার সভাপতি হাজী মিজানুর রহমান, সহ-সাধারণ সম্পাদক মোঃ মিজানুর রহমান চৌধুরী, সহ-সাধারণ সম্পাদক মো: মোকলেছার রহমান, সহ-সভাপতি প্রভাষক মো: ফরহাদ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: তোজাম্মেল হোসেন, উপজেলা কৃষক লীগের কৃষি বিষয়ক উপদেষ্টা দিপু চন্দ্র বিশ্বাস, অর্থ বিষয়ক সম্পাদক মো: রাজু আহম্মেদ। কৃষক লীগের ৪৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে পার্টির কার্যালয়ে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় স্থানীয় দলীয় নেতা কর্মী, সাংবাদিক স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

  • হেফাজতের সাথে শিক্ষা ও মতাদর্শসহ যেকোন আপোষ কন্টাকাকীর্ণ করে তুলবে : ওয়ার্কার্স পার্টি

    বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির পলিটব্যুরো রাজনৈতিক ও শিক্ষাঙ্গণের ক্ষেত্রে সাম্প্রতিক ঘটে যাওয়া ঘটনাবলীতে তীব্র ক্ষোভ ও উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছে যেভাবে ধর্মান্ধ গোষ্ঠীকে তোষামোদ করা হচ্ছে এবং তাদের কাছে নতি স্বীকার করে শিক্ষা ক্ষেত্রে বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে তা দেশের অসাম্প্রদায়িক গণতান্ত্রিক অভিযাত্রাকেই বাঁধাগ্রস্থ করবে। ওয়ার্কার্স পার্টির পলিটব্যুরোর তরফ থেকে আজ ১৯ এপ্রিল প্রদত্ত এক বিবৃতিতে বলা হয় হেফাজতের দাবি অনুসারে পাঠ্যপুস্তকে পরিবর্তন সাধনের পর কওমী মাদ্রাসার সনদের নিঃশর্ত স্বীকৃতি অসাম্প্রদায়িক শিক্ষা ব্যবস্থার ক্ষেত্রে এক চরম কুঠারাঘাত। অন্যদিকে মতাদর্শ ক্ষেত্রে হেফাজতের সাথে আপোষ এদেশের গণতান্ত্রিক রাজনীতির পথকেই আরও কন্টাকাকীর্ণ করে তুলবে। ওয়ার্কার্স পার্টির বিবৃতিতে ২০১৩ সালের ৫ মে হেফাজত কর্তৃক শাপলা চত্বরের সমাবেশ থেকে সরকার পতনের ডাক, বায়তুল মোকাররম থেকে মতিঝিল পর্যন্ত অঞ্চলে তা-ব, কোরান ও অন্যান্য ধর্মগ্রন্থে অগ্নিসংযোগ, নারীনীতি ও নারী অধিকারের চরম বিরোধীতা রাজনৈতিক দলের অফিস আক্রমণের ঘটনাবলী স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলা হয় তারা তাদের এই কাজে বিএনপি-জামাতের সমর্থন পায় নাই কেবল, একে কাজে লাগিয়ে ঐ গোষ্ঠীর ক্ষমতা দখলের খেলায় সক্রিয় ভূমিকা রেখেছিল। শাপলা চত্বরের ঘটনা সম্পর্কে চরম মিথ্যা প্রচার চালিয়েছিল। সেই হেফাজতের প্রতিটি দাবি মেনে নিয়ে আপোষ ঐ অপশক্তির মুক্তিযুদ্ধ স্বাধীনতাবিরোধী স্পর্ধা আরো বাড়িয়ে দেওয়া হলো। ওয়ার্কার্স পার্টির বিবৃতিতে সুপ্রীম কোর্টের সামনে স্থাপিত ভাষ্কর্য্য অপসারণ সম্পর্কে বলা হয় এর পরিণাম ফল হিসেবে দেশের বিভিন্ন স্থানে বঙ্গবন্ধুর ভাষ্কর্র্যসহ মুক্তিযুদ্ধের ভাস্কর্যসমূহ অপসারণের দাবি উঠবে। ওয়ার্কার্স পার্টির বিবৃতিতে বলা হয় সংসদকে পাশ কাটিয়ে কওমী মাদ্রাসার সনদের স্বীকৃতি এদেশের একমুখী বিজ্ঞান ভিত্তিক শিক্ষা ব্যবস্থার দাবীকেই নস্যাৎ করে সংবিধানের সাথে সাংঘর্ষিক করা হলো। শুধু তাই নয় গোঁজামিল দিয়ে কওমী হেফাজতী নেতাদের নিয়ে তথাকথিত কওমী শিক্ষা বোর্ড বানিয়ে সনদের স্বীকৃতির যে চেষ্টা করা হচ্ছে তাতে মাদ্রাসা শিক্ষাব্যবস্থায় নতুন সংকট দেখা দেবে। শিক্ষা অবশ্যই প্রচলিত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনস্থ হতে হবে। কওমী মাদ্রাসার ক্ষেত্রে রাষ্ট্র আইন বিবর্জিত কোন স্বাধীন নীতি সার্বিকভাবে জাতির জন্য ক্ষতি ডেকে আনবে। জাতীয় রাজনীতিতে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নের অঙ্গীকার নিয়ে অসাম্প্রদায়িক গণতান্ত্রিক শক্তি হারিয়ে যাওয়া ধর্মনিরপেক্ষতার চেতনা যতটুকু পুণরুদ্ধার করেছিল তা আবার মুখ থুবড়ে পড়বে। ভোটের রাজনীতির ক্ষেত্রেও এটা কার্যকরী শক্তি নয়। ওয়ার্কার্স পার্টির বিবৃতিতে এই তথাকথিত লোকরঞ্জনবাদী অপধারার বিরোধীতায় সকল অসাম্প্রদায়িক গণতান্ত্রিক ধর্মনিরপেক্ষ রাজনৈতিক দল, সংগঠন, সামাজিক-সাংস্কৃতিক কর্মী, সকল গণমাধ্যমকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানানো হয়েছে।

  • আ’লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে বাড়ীতে ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অগ্নি সংযোগ

    সালথায় আ’লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে এলাকা রণক্ষেত্র বাড়ীতে ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অগ্নি সংযোগ, ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া  আহত অর্ধশতাধিক, পুলিশের রাবার বুলেট ও টিয়ালশেল নিক্ষেপ।  ফরিদপুরের সালথায় আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে এলাকা রণক্ষেত্রে পরিনত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত উপজেলার সালথা বাজারসহ মদনদিয়া, রামকান্তপুর ও আশপাশের প্রায় ১৫ টি গ্রামে দফায় দফায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে উভয় গ্রুপের অন্তত অর্ধশতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে সংর্ঘষ নিয়ন্ত্রনে আনে। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, সোমবার রাতে সালথা বাজারে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাব্বির চোধূরীর সমর্থকদের সাথে রামকান্তপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ মোল্লার সমর্থকদের বাক-বিতন্ডা ও হাতাহাতি হয়। এরই জের ধরে মঙ্গলবার সকাল থেকে দুই গ্রুপের সমর্থকরা দেশীয় অস্ত্র ঢাল-কাতরা, সড়কি, রামদা-বল্লম নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার মধ্যদিয়ে প্রায় ৬ ঘন্টাব্যাপী চলে এই সংঘর্ষ। এতে উভয় গ্রুপের পাল্টাপাল্টি হামলায় শতাধিক ব্যক্তি আহত হয়। এসময় উভয় গ্রুপের প্রায় ৪০টি বসতঘর ভাংচুর ও লুটপাট করে সংঘর্ষকারীরা। এছাড়াও সাব্বির চৌধুরীর সমর্থকেরা আলতাফ মোল্যার ৩ টি বসত ঘর ও একটি পাটের গুদাম, নেছারদ্দীন মোল্যার একটি, আফসার মোল্যার একটি পাটের গুদামে অগ্নি সংযোগ করে। সংঘর্ষে আহতদের ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ জেলার বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে শাজাহান মোল্যা ও মুক্তার হোসেনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানাগেছে। সংঘর্ষে সালথা বাজারের সকল ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে যায়। সংঘর্ষের আশপাশের এলাকা আতঙ্ক বিরাজ করছে।আলতাফ মোল্যার ছেলে পিকুল মোল্যা জানান, সাব্বির চৌধুরীর হুকুমে তার লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আমাদের বাড়ীতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট করে। এ সময় আমাদের তিনটি বসত ঘর একটি পাটের গুদাম ও দুই চাচার দুটি পাটের গুদামে অগ্নি সংযোগ করে। অভিযুক্ত সাব্বির চৌধুরী অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, সংঘর্ষ চলাকালে আমি ঢাকায় ছিলাম। আলতাফ মোল্যার ছেলে উপজেলা স্বেচ্ছা-সেবকলীগের সভাপতি পিকুল মোল্যা দীর্ঘদিন যাবৎ এলাকায় দাঙ্গা হাঙ্গামা করে আসছে। এলাকার নিরিহ লোকজন ক্ষীপ্ত হয়ে তার বাড়ীতে হামলা চালিয়েছে। সালথা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) একেএম আমিনুল হক বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এলাকায় পরিস্থিতি শান্ত রাখার জন্য অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

  • জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে যুবসমাজকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে

    বাংলাদেশ যুব মৈত্রীর ২৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনা সভায় শহীদ আসাদ মিলনায়তনে সংগঠনের সভাপতি সাব্বাহ আলী খান কলিন্সের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক জননেতা ফজলে হোসেন বাদশা এমপি বলেন, জঙ্গিবাদ যেমন সারা বিশ্বের জন্য হুমকী ঠিক তেমনি বাংলাদেশের জন্যও হুমকি। জঙ্গিবাদী হুমকি মোকাবেলায় যুব মৈত্রী ও যুব সমাজকে ঐক্যবদ্ধ লড়াই এগিয়ে নিতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী জামাত এবং বিএনপি সক্রিয়ভাবে জঙ্গিবাদীদের সহযোগিতা করছে। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ওয়ার্কার্স পার্টির পলিটব্যুরোর সদস্য ও যুব মৈত্রীর সাবেক সভাপতি নুর আহমদ বকুল বলেন, দুর্নীতি ও বেকারত্ব নিরসনে অবশ্যই যুব মৈত্রীকে সাহসী ভূমিকা এদেশের সাধারণ মানুষ আশা করে। সাধারণ মানুষকে আশাহত করা যাবে না। পাল্টে ফেলার মানুষিকতা নিয়ে সংগঠনকে সংগঠিত করা এখন সময়ের প্রয়োজন। সভায় আরো বক্তব্য রাখেনÑ সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম তপন, সহসভাপতি তৌহিদুর রহমান, মুর্শিদা আখতার ডেইজী, শফিকুল ইসলাম শফিক, সহসাধারণ সম্পাদক ফারহান বালী, দপ্তর সম্পাদক মিজানুর রহমান, কেন্দ্রীয় সদস্য ওমর ফারুক সুমন, ইয়াদুল ইসলাম প্রমুখ।

  • ডুমাইনকে আদর্শ ইউনিয়ন হিসাবে গড়ে তুলতে চাই ......খুরশীদ আলম মাসুম

    আমার প্রিয় ইউনিয়ন ডুমাইনকে একটি আদর্শ সন্ত্রাস ও মাদক মুক্ত ইউনিয়ন হিসাবে গড়ে তুলতে চাই। ইউনিয়ন বাসির কল্যানে সারাটি জীবন কাজ করে জেতে চাই। কথাগুলো বলেছেন ডুমাইন ইউনিয়নে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. খুরশীদ আলম মাসুম।গতকাল সোমবার বিকেলে ডুমাইন ইউনিয়নের ভ্যাল্যাকান্দি এলাকায় নির্বাচনী প্রচারনাকালে সাংবাদিকদের বলেন এ অঞ্চলের সর্বস্তরের মানুষ আমার প্রাণ প্রিয়,এই এলাকার মাটিতে আমার জন্ম আর এ মাটিতেই আমার শেষ ঠিকানা। এখানকার মাটি মানুষের সাথে আমি বেড়ে উঠেছি। ইউনিয়নের বাসিন্দা বড় ছোট সকলেই আমার মা.বাবা ভাই,বোনের মত। আমি এলাকার সবার কাছে দোয়া ও আর্শীবাদ প্রত্যাশী আর আমি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে খেটে খাওয়া দুঃখী মানষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাব সারাটি জীবন। নির্বাচনে আমার প্রতিক নৌকা। জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নৌকা দিয়ে জনগনের সেবার যে দায়িত্ব দিয়েছেন , সে দায়িত পালনে আমি সর্বদা সচেষ্ট  থাকবো।উল্লেখ্য আগামী ১৬ এপ্রিল মধুখালী উপজেলার চারটি ইউনিয়নে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

  • আজীবন স্বরণীয় থাকবনে ডঃ মাহমুদ আওয়ামি রাজনীতিতে

    আজীবন বঙ্গবন্ধুর আর্দশে নবিদেতি প্রাণ ও পরীক্ষতি মুজবিীয় সনৈকি  ছলিনে ডঃ মাহমুদ হাসান। নীতি ও আর্দশে কন্চিতি পরমিাণ ও নীতি বচ্যিুত হন্নি তনি।নীতি ও আর্দশে অবচিল থকেে বঙ্গবন্ধুর আর্দশ প্রতষ্ঠিায় এবং অসাম্প্রদায়কি বাংলাদকে গঠনে অনন্য ভুমকিা রখেছেনে ডঃ মাহমুদ হাসান। চট্রগ্রামরে আওয়ামী রাজনতিরি ইতহিাসে তার র্কম ও গুনে আজীবন স্বরণীয় থাকবনে ডঃ মাহমুদ হাসান। সদ্য প্রয়াত ত্যাগী আওয়ামীলীগ নতো ডঃ মাহমুদ হাসানরে কবর জয়িারত ও শ্রদ্বা নবিদেন কালে আওয়ামীলগিরে উপদষ্ঠো আলহাজ্ব মোঃ ইসহাক ময়িা এ কথা বলনে। ডজিটিাল বাংলাদশে পাবলসিটিি কাউন্সলিরে উদ্যোগে দুপুর ২টায় ফটকিছড়রি নানুপুর গ্রামস্হ প্রয়াত ডঃ মাহমুদ হাসানরে কবরে পুষ্প নবিদেন ও জয়িারতকালে উপস্হতি ছলিনে, আওয়ামীলগিরে উপদষ্ঠো আলহাজ্ব মোঃ ইসহাক ময়িা। সংসদ সদস্য আসলাম হোসনে, সংগঠনরে প্রতষ্ঠিাতা সম জয়িাউর রহমান, সদস্য বীর মুক্তযিোদ্বা এস এম লয়িাকত হোসনে, সদস্য মোঃ জামাল উদ্দনি, লায়ন সাইফুল ইসলাম, আসফি ইকবাল, মোঃ সলেমি উদ্দনি, মুবনি সকিদার, জাকরি হোসনে, শাফায়াত মারুফ, কাজি সাইফুল ইসলাম প্রমুখ। এ সময় ইসহাক ময়িা সংগঠনরে পক্ষে প্রয়াত ডঃ মাহমুদ হাসানরে সংগঠনরে পক্ষে ফুল দয়িে শ্রদ্বা নবিদেন করনে।

  • সুপ্রীম কোর্ট বার ও ঢাকা বার নব-নির্বাচিত কমিটির সংবর্ধনা

    ঢাকা বার অডিটোরিয়ামে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বৃহত্তর ঢাকা জেলা জাতীয়তাবাদী বিএনপির আইনজীবী কমিটির হাইকোর্ট বার, ঢাকা বারের নব-নির্বাচিত কমিটিদের সংবর্ধনায় প্রধান অতিথি জাতীয়তাবাদী কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য বাবু গয়েশ্বর চন্দ্র রায় উপস্থিত ছিলেন। আরো উপস্থিত ছিলেন সভাপতি সুপ্রীম কোর্ট বার ও সহ-সভাপতি বিএনপির সিনিয়র এডঃ আলহাজ্ব জয়নুল অবেদিন, সম্পাদক সুপ্রীম কোর্ট বার ও যুগ্ম সম্পাদক বিএনপির ব্যরিষ্টার এ.এম মাহাবুব উদ্দিন খোকন, সভাপতি ঢাকা বার ও সহ-আইন বিষয়ক সম্পাদক বিএনপির এডঃ মোঃ খোরশেদ আলম, সাধারণ সম্পাদক ঢাকা বার নব-নির্বাচিত কমিটির এডঃ মোঃ আজিজুল ইসলাম খান বাচ্চু, সাবেক সভাপতি ঢাকা আইনজীবী সমিতি ও বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এডঃ এম. মাসুদ আহমেদ তালুকদার, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ব্যারিষ্টার জিয়াউর রহমান খান, সাবেক সভাপতি ঢাকা আইনজীবী সমিতি ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা এডঃ আলহাজ মোঃ বোরহান উদ্দিন, সাবেক সভাপতি ও ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ মহসীন মিয়া, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এডঃ তৈমুর আলম খন্দকার, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক বিএনপির এডঃ আব্দুস সালাম আজাদ, সাবেক-সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ মকবুল হোসেন ফকির, সাবেক-সাধারণ সম্পাদক ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ গোলাম মোস্তফা খান, সাবেক-সাধারণ সম্পাদক ঢাকা আইনজীবী সমিতি ও সহ-আইনবিষয়ক সম্পাদক বিএনপির এডঃ মোঃ ইকবাল হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ঢাকা আইনজীবী সমিতি ও নির্বাহী সদস্য বিএনপির এডঃ মোঃ খোরশেদ মিয়া আলম, সাধারণ সম্পাদক ঢাকা জেলা বিএনপি, উপজেলা চেয়ারম্যান নবাবগঞ্জ, ঢাকা ও নির্বাহী সদস্য বিএনপির জনাব খন্দকার আবু আশফাক, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ মোসলেহ উদ্দিন জসিম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ ওমর ফারুক (ফারুকী), সাবেক সিঃ সহ-সভাপতি ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ মল্লিক শফি উদ্দিন আহম্মেদ, সাবেক স-সভাপতি ঢাকা আইনজীবী সমিতির এডঃ মোঃ হারুন রশিদ খান। বিশেষ অতিথি সাবেক সভাপতি ঢাকা আইনজীবী সমিতি ও আইন বিষয়ক সম্পাদক বিএনপির এডঃ মোঃ সানাউল্লাহ মিয়া, বিশেষ অতিথি বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী বিএনপির মহানগর সাংগঠনিক সম্পাদক এডঃ আব্দুস সালাম। সভাপতিত্ব করেন এডঃ শেখ আলাউদ্দিন, সভাপতি, বৃহত্তর ঢাকা জেলা জাতীয়বাদী যুব আইনজীবী কল্যাণ সমিতি।

  • জেলা ছাত্রলীগের কমিটিতে নির্বাচিত হওয়ায় মধুখালীতে আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরন

    ১৯বছর পর  মধুখালীর  ছাত্রলীগ নেতারা  ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগের  কমিটিতে সহসভাপতি ও যুগ্ম  সাধারন সম্পাদক  নির্বাচিত হওয়ায় আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরন করা হয়েছে।সোমবার সন্ধ্যায় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ ও সাধারন সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইনের স্বাক্ষরীত পত্রের মাধ্যমে মধুখালীর ছাত্রনেতা মো.রফিকুর ইসলাম সহসভাপতি, আমিনুর রহমান যুগ্ম  সাধারন সম্পাদক, মো. রাজিব হোসেন যুগ্ম  সাধারন সম্পাদক, শিহাব হাসনাত সৌমিক যুগ্ম  সাধারন সম্পাদক, মো.মুরাদ শেখ , সুব্রত সরকার ,রাজিব ঘোষ কে সদস্য নির্বাচিত ঘোষনা করা হয়।মধুখালীর গৌরবময় ছাত্রলীগ নেতাদের ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগের কমিটিতে নির্বাচিত করায়  গতকাল বুধবার দুপুরে উপজেলা ছত্রীলীগের উদ্যোগে আনন্দ মিছিল বঙ্গবন্ধু মুর‌্যাল থেকে উপজেলার ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক সহ পৌর সদরের গুরুত্বপূর্ন সড়ক দক্ষিণ করে বঙ্গবন্ধু মুর‌্যালে শেষ হয়।মিছিল পরবর্তি নেতা কর্মিদের মাঝে মিষ্টি বিতরন করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ মধুখালী উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক মো. রেজাউল হক বকু,যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক মো. শহিদুল ইসলাম,ছাত্র নেতা এস এম শাহারিয়ার রুমি (রনি), সেচ্ছাসেবকলীগ নেতা সানজিদ হাসনাত সৌরভ সহ প্রমুখ।

  • ‘অপারেশন টোয়ালাইট’ সফল সমাপ্তিতে ওয়ার্কার্স পার্টির স্বস্তি প্রকাশ

    বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি কমরেড রাশেদ খান মেনন এমপি ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক কমরেড আনিসুর রহমান মল্লিক এক বিবৃতিতে সিলেটে জঙ্গি আস্তানা ‘আতিয়া মহলে’ সেনাবাহিনী পরিচালিত ‘অপারেশন টোয়ালাইট’ সফল সমাপ্তিতে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন। আজ এক বিবৃতিতে তারা বলেন, সিতাকু-ের জঙ্গি আস্তানার সূত্র ধরে খোঁজ পাওয়া ‘আতিয়া মহলে’ জঙ্গিরা ব্যাপক বিস্ফোরকের পুরো ভবনটিকে ঘিরে তারা কৌশলগত প্রতিরক্ষাব্যুরো তৈরি করেছিল যা ছিল অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। ‘অপরাশেন টোয়ালাইটের’ কর্মরত সেনা সদস্যগণ অত্যন্ত কৌশলে ভবনে অবস্থানরত পরিবারগুলোকে ঝুঁকি নিয়ে নিরাপদে সরিয়ে আনেন। কিছুটা সময় লাগলেও এখানে কোন দুর্ঘটনা ঘটেনি। পরে সাফল্যের সাথে তারা জঙ্গি দমন করেন। বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ এই সাফল্যের জন্য সেনাবাহিনী, পুলিশ, র‌্যাব সহ আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সকল সদস্যদের অভিনন্দন জানান।বিবৃতিতে তারা আরো বলেন, ঢাকার আশকোনায় র‌্যাব সদর দপ্তরে আত্মঘাতি বোমা হামলা হযরত শাহজালাল (রা:) আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর সন্নিকটে গোল চত্বরে পুলিশ বক্সের কাছে আত্মঘাতি বোমা বিস্ফোরণ, কুমিল্লার দাউকান্দিতে পুলিশের প্রতি দুই হাজীর বোমা হামলা ইত্যাদি ঘটনা একই যোগ সূত্র। নেতৃবৃন্দ দেশী বিদেশী শত্রুরা আজ ভীষণ তৎপর এদের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ সংগ্রাম গড়ে তোলার জন্য দেশবাসিকে আহ্বান জানান।

  • গণতন্ত্রের মুক্তিতেই নারীমুক্তি: মির্জা ফখরুল

    গণতন্ত্রের মুক্তির উপর নারীমুক্তি ও নারী অধিকারসহ সবকিছুই নির্ভর বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গতকাল বুধবার দুপুরে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচতলায় র‌্যালির উদ্ভোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন। আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে র‌্যালির আয়োজন করে জাতীয়তাবাদী মহিলাদল। মির্জা ফখরুল বলেন, আজ আন্তর্জাতিক নারী দিবস। বিশ্বের জনসংখ্যার অর্ধেক নারী। মানব সভ্যতার ইতিহাসে নারীদের অবদান পুরুষদের সমান। আমাদের একটি জিনিস মনে রাখতে হবে, গণতন্ত্রের মুক্তির উপর নারীমুক্তি, নারীদের স্বাধীনতা, অধিকার এই সবকিছুই নির্ভর করবে। তাই যদি দেশে গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রব্যবস্থা থাকে, যদি আমরা আমাদের অধিকারগুলো প্রয়োগ করা নিশ্চিত করতে পারি তাহলেই কেবল নারী অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে পারবো। তিনি বলেন, আমরা সবাই জানি- বাংলাদেশে নারীমুক্তি আন্দোলন সূচনা করেছিলেন একজন পুরুষ, তিনি শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান। তিনি উপলব্ধি করেছিলেন নারীদের পিছনে ফেলে রাখলে রাষ্ট্র নির্মাণ সম্ভব হবে না। সেজন্য তিনি মহিলাবিষয়ক মন্ত্রণালয় তৈরি করেছিলেন এবং নারীদের সর্বক্ষেত্রে অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে উদ্যোগ গ্রহণ করেছিলেন। যার ধারাবাহিকতায় পরবর্তীতে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া নারীদের সেই উদ্যোগকে আরও বেগবান করেছেন। বিএনপি মহাসচিব বলেন, আজকে দেশে যে সংকট তা হচ্ছে গণতন্ত্রের সংকট, অধিকারের সংকট। তাই আসুন আন্তর্জাতিক নারী দিবসে শপথ গ্রহণ করি- আমরা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে গণতন্ত্রকে পুন:রুদ্ধার করবো, আমাদের অধিকার রক্ষা করবো এবং নারীদের প্রতি যাতে করে কোনো প্রকার অত্যাচার নির্যাতন না হয় সে ব্যাপারে সোচ্চার হবো। এবং সামনের দিনে রাষ্ট্র নির্মাণে এগিয়ে যাবো। বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, নারীর অগ্রগতির পক্ষে বিএনপির যে অবদান তা শেখ হাসিনার তুললা করলে এক ইঞ্চিও হবে না। শেখ হাসিনার অধীনে এত বেশী নারী নির্যাতন যা ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। সরকার নিজেদেরকে প্রগতিশীল ভাবেন অথচ শেখ হাসিনার অধীনে এত বেশী নারী শিশু নির্যাতন হয়েছে যা ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। তিনি বলেন, আজ গুরুত্বপূর্ণ দিন। আগে এই দিবসটিতে আন্তর্জাতিক শ্রমিক নারী দিবস পালন হতো এখন পূর্ণাঙ্গ নারী দিবসই পালন করা হচ্ছে। নারীরা হিমালয় জয় করছে। তারা আর পিছিয়ে নেই। তারপরও তাদেরকে বিভিন্নভাবে পিছিয়ে রাখা হয়। তারা সহিংসতার স্বীকার হচ্ছে। এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমান, উপস্থিত ছিলেন বিএনপির সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক নূরে আরা সাফা, নির্বাহী কমিটির সদস্য খালেদা ইয়াসমিন, নিপুন রায় চৌধুরী, মহিলা দলের সাধারণ সম্পাদক সুলতানা আহমেদ, সহ-সভাপতি জেবা খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হেলেন জেরিন খানসহ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

  • হুম্মাম ফেরার পর বাকিদের ও ছেড়ে দেয়ার দাবি

    একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ডে দণ্ডিত সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর ছেলে হুম্মাম কাদের চৌধুরী সাত মাস অজ্ঞাতস্থানে কাটানোর পর বাড়ি ফিরেছেন৷ দু’টি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা আরো দু’জনকে ছেড়ে দিতে বলেছে৷  বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বাড়ি ফেরেন হুম্মাম কাদের চৌধুরী, যাকে গত ৪ আগস্ট পুরান ঢাকার আদালত পাড়া থেকে সাদা পোশাক পরা একটি দল তুলে নিয়ে গেছে বলে তার পরিবারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়৷ পরিবারের দাবি ছিল, হুম্মামকে ডিবি পরিচয়ে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে৷ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনে করা এক মামলায় হাজিরা দিতে সেদিন আদালতে গিয়েছিলেন হুম্মাম৷ আইনশৃঙ্খলা বাহিনী অবশ্য তাঁকে আটক বা গ্রেপ্তারের কোনো খবর নিশ্চিত করেনি৷ তবে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে এই নিয়ে শোরগোল সৃষ্টি হয়েছিল৷ একাধিক আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা হুম্মামসহ নিখোঁজ হয়ে যাওয়া আরো কয়েকজনকে  ছেড়ে দেয়ার দাবি জানায়৷

  • লিডারশিপ ওয়ার্কসপ প্রজেক্ট এর শুভ উদ্বোধন

    লিডারশিপ ওয়ার্কসপ প্রজেক্ট এর শুভ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব এ্যাড. রুহুল কবির রিজভী, সভাপতিত্ব করেন ইশতিয়াক আজিজ উলফাত।

  • ৩দিন ব্যাপী বার্ষিক ক্রীড়ানুষ্ঠান সম্পন্ন

    পঞ্চগড়ের আটোয়ারী আদর্শ মহিলা ডিগ্রী কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া, সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা ,পুরস্কার বিতরণ ও বনভোজন অনুষ্ঠান শান্তি-শৃংখলার সহিত উদযাপিত হয়েছে। জানাগেছে, তিনদিন ব্যাপি অনুষ্ঠানের প্রথম দিন ২৭ ফেব্র“য়ারী  দিনভর বিভিন্ন ক্রীড়ানুষ্ঠান কলেজ ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত হয়। পরদিন ২৮ ফেব্র“য়ারি কলেজের নিজস্ব শিল্পীদের নিয়ে কলেজ ক্যাম্পাসে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং ০১ লা মার্চ বুধবার ব্যাপক আয়োজনে আনন্দ উল্লাসের মাধ্যমে বনভোজন অনুষ্ঠিত হয়। কলেজের অধ্যক্ষ এম.এ. মান্নানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের আটোয়ারী উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক মোঃ তৌহিদুল ইসলাম ,বিশেষ অতিথি হিসেবে পঞ্চগড় সরকারি মহিলা কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোঃ মজিবর রহমান, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান গোলাপ, উপজেলা ক্রীড়া সম্পাদক মোঃ মিজানুর রহমান,উপজেলা প্রেস ক্লাবের সভাপতি মোঃ ইউসুফ আলী প্রমুখ উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন। বক্তরা কলেজের শিক্ষার মান সহ তিনদিন ব্যাপী বার্ষিক ক্রীড়ানুষ্ঠান শান্তি-শৃংখলার সহিত সম্পন্ন করায় ব্যবস্থাপনা কমিটি সহ সংশ্লিষ্ট সকলের প্রশংসা করে বক্তব্য দেন। আলোচনা শেষে ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। ১লা মার্চ বুধবার কলেজ ক্যাম্পাসে বনভোজনের মধ্যদিয়ে তিন দিনের কর্মসুচির সমাপ্তি ঘোষনা করেন কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ আব্দুল মান্নান।

  • একজন মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর মদদে পরিবহণ ধর্মঘট : ফখরুল

    বুধবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাব মিলনায়তনে ২৫ ও ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০০৯ পিলখানায় শহীদ সেনা কর্মকর্তাদের স্মরণে বিএনপি আয়োজিত আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন সরকারের একজন মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর ইন্ধনে সারাদেশে পরিবহণ ধর্মঘট চলছে। তিনি দাবি করেছেন ফখরুল বলেন, ‘পরিবহণ ধর্মঘটের সঙ্গে পেছনে যিনি মদদ যোগাচ্ছেন তিনি সরকারের একজন প্রভাবশালী মন্ত্রী। আজকে এইভাবে একটি অরাজক পরিবেশ সৃষ্টি করা হচ্ছে। সম্পূর্ণ ব্যক্তি ও দলীয় স্বার্থে দেশব্যাপী পরিবহণ ধর্মঘটের মাধ্যমে গোটা দেশকে ধ্বংস করেছে। সরকার এই সমস্যা সমাধানে ব্যর্থ হয়েছে। দেশে কোনো সরকার বলে আছে কিছু মনে হয় না এমন দাবি করে তিনি বলেন, বিডিআর বিদ্রোহের নিহতদের স্মরণ করে মির্জা ফখরুল বলেন,বাংলাদেেেশর জাতীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে ভেঙে দেয়ার জন্য সুপরিকল্পিত ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে পিলখানা হত্যাকা- সংগঠিত হয়েছে। স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বের উপর বারবার আঘাত এসেছে।দুর্ভাগ্য আমাদের গর্বিত সেনাবাহিনী তা প্রতিহত করেছে।  কিন্তু প্রথম তাদের উপর আঘাত এসেছে সেদিন তাদের পক্ষে কোনো ব্যবস্থা নেয়া সম্ভব হয়নি। আমরা মনে করি এরজন্য দায়ি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ভবিষ্যতে পিলখানা হত্যাকা-ের প্রকৃত অপরাধী যারা তাদেরকে বিচারের আওতায় আনা হবে। গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, এটা সম্পূর্ণ অনৈতিক ও অযোক্তিক। উদ্দেশে একটিই শুধু এলএনজির আমদানী করে তাদের লোকেরা বিক্রি করবে।ফখরুল অভিযোগ করে বলেন, আজকে বিচার বিভাগ, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও মিডিয়া সব নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা করছে। উদ্দেশ্য একটাই একদলীয় শাসন কায়েম করবে।  বিচারের নামে সরকার মিথ্যা মামলা দিয়ে গোটা দেশকে কারাগারে পরিণত করেছে। বেগম খালেদা জিয়া প্রতি সপ্তাহে কখনো একবার , কখনো দুইবার আদালতে যেতে হচ্ছে।  তারা খালেদা জিয়াসহ বিএনপিকে রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে রাখতে চায়। তিনি বলেন, দেশের মানুষ গণতন্ত্রের জন্য সারাজীবন সংগ্রাম করেছে। মানুষ আগামীতেও গণতন্ত্রের জন্য সংগ্রাম করবে। ফখরুল বলেন, নির্বাচন সম্পর্কে বিএনপির বক্তব্য স্পষ্ট। আমরা নির্বাচন চাই। কারণ বিএনপি একটি গণতান্ত্রিক দল। কিন্তু সেটা অবশ্যই নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে। সাবেক সেনাপ্রধান ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য লে. জেনারেল(অব:) মাহবুবুর রহমানের সভাপতিত্বে বক্তব্যে দেন দলের স্থায়ী কমিটির আরেক সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ভাইস চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব:) রুহুল আলম চৌধুরী, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল আলম চৌধুরী, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী, নির্বাহী কমিটির সদস্য মেজর (অব:) মিজানুর রহমান মিজান প্রমুখ। আলোচনাসভা সঞ্চালনা করেছেন বিএনপির সহ প্রচার সম্পাদক আলিমুল ইসলাম খান আলিম।

E-mail : info@dpcnews24.com / dpcnews24@gmail.com

EDITOR & CEO : KAZI FARID AHMED (Genarel Secratry - DHAKA PRESS CLUB)

Search

Back to Top