• মধ্য আফ্রিকায় শান্তিচুক্তির একদিন পর সংঘর্ষ : ৪০ জন নিহত

      মধ্য আফ্রিকান প্রজাতন্ত্রে অস্ত্রবিরতি চুক্তির পরদিন মঙ্গলবার সংঘর্ষ শুরু হয়ে গেছে। এতে অন্তত ৪০ জন নিহত ও আরো বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে।সহায়তা ও নিরাপত্তা সূত্রে জানা গেছে, দেশটির মধ্যাঞ্চলীয় ব্রিয়ার শহরে খ্রিষ্টান ‘এনটি-বালাকা’ বিদ্রোহী ও মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর সমন্বয়ে গঠিত সেলেকার মধ্যে সহিংসতা শুরু হয়েছে।সিএআর সরকার ও বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলো সোমবার অস্ত্রবিরতিতে সম্মত হওয়ার একদিন পর ফের সংঘর্ষ শুরু হয়।খবর এএফপি’র।রোমে ক্যাথলিক কমিউনিটি সান্টা’এগিদিওর মধ্যস্থতায় পাঁচ দিন আলোচনার পর চুক্তিটি হয়েছিল।চুক্তির আওতায় অবরোধ ও হামলা বন্ধের বিনিময়ে সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোকে রাজনীতিতে প্রতিনিধিত্ব করার ব্যাপারে সম্মতি জানানো হয়।ব্রিয়ার শহর থেকে কারডক্টর্স উইদআউট বর্ডার্স (এমএসএফ)র প্রকল্প সমন্বয়ক মুমুজা মুহিন্দো মুসুবাহো এক বিবৃতিতে জানান, মঙ্গলবার ভোরে ফের নতুন করে সংঘর্ষ ও সহিংসতা শুরু হয়েছে। এতে বেশ কয়েকজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।সংস্থাটি জানায়, এই ঘটনায় ৪৩ জন আহত হয়েছে।মুসলিম সেলেকা জোটের শরিক পপুলার ফ্রন্ট ফর দি রিপাবলিক (এফপিআরসি)’র মুখপাত্র জামিল বাবানানি বলেন, ‘আমাদের অন্তত ১ যোদ্ধা নিহত ও ২০ জন আহত হয়েছেন।

  • কাতারের ওপর অবরোধ অনৈসলামিক : এরদোগান

      আঙ্কারা : তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়িপ এরদোগান সৌদি আরবসহ কয়েকটি আরব দেশ কাতারকে যেভাবে একঘরে করার চেষ্টা করছে তাকে অমানবিক ও অনৈসলামিক অভিহিত করে এর কঠোর নিন্দা করেছেন।এরদোগান বলেন, ‘কাতারের ক্ষেত্রে এক গুরুতর ভুল করা হচ্ছে। তাদের বিচ্ছিন্ন করার এই চেষ্টা অমানবিক এবং ইসলামী মূল্যোধের বিরোধী। এটা এটা কাতারকে মৃত্যুদ- দেবার সামিল।’তুরস্কে এ অবরোধের প্রতিবাদ জানাতে বিক্ষোভও হয়েছে গত সপ্তাহে।অবরোধের কারণে সংকটাপন্ন কাতারকে সাহায্য দিতে শুরু করেছে বিভিন্ন দেশ। তুরস্ক ও ইরানের পর এখন মরক্কোও কাতারে বিমানে করে খাবার পাঠিয়েছে। তুরস্ক দুধজাত খাবার, মুরগির মাংস, এবং ফলের রস পাঠিয়েছে।মরক্কো বলছে, পবিত্র রমজান মাসে মুসলিমদের পারস্পরিক সাহায্যের চেতনা থেকে তারা বিমানে করে খাদ্যসামগ্রী পাঠাবে।উপসাগরীর দেশগুলোর মধ্যে কাতারের সঙ্গে তুরস্কের বেশ উষ্ণ সম্পর্ক রয়েছে এবং কাতারকে তারা ঐ অঞ্চলের প্রধান মিত্র বলে গণ্য করে। স্বভাবতই কাতারের বিরুদ্ধে অন্য উপসাগরীয় দেশগুলোর অবরোধ আরোপের ঘটনায় তুরস্ক বেশ ক্ষুব্ধ।কাতারের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদে মদদ দেয়ার যে অভিযোগ আনা হয়েছে, সেটি প্রত্যাখ্যান করে প্রেসিডেন্ট এরদোগান বলেন, তুরস্ক যেভাবে ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে শক্ত অবস্থান নিয়েছে, কাতারের অবস্থানও তাই। কাজেই মানুষকে বোকা বানানো বন্ধ করা উচিত।কাতারকে ঘিরে এই সংকটে তুরস্ককে একটু নাজুক অবস্থায় ফেলেছে। সৌদি আরবের সঙ্গে তাদের সম্পর্কের উন্নতি ঘটছে, কিন্তু একই সঙ্গে তারা ইরানের সঙ্গেও সম্পর্ক রাখতে চায়।সৌদি আরবকে সরাসরি সমালোচনা না করলেও প্রেসিডেন্ট এরদোগান এই সংকটের সমাধানে বাদশাহ সালমানকে উদ্যোগ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।তুরস্কের পার্লামেন্ট গত সপ্তাহে কাতারের একটি তুর্কি সামরিক ঘাঁটিতে সৈন্য মোতায়েনর প্রস্তাবও অনুমোদন করেছে।

  • কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন সৌদি আরব, বাহ্রাইন, মিশর ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের

    সৌদি আরব, বাহ্রাইন, মিশর ও সংযুক্ত আরব আমিরাত ‘সন্ত্রাসবাদে’ সহযোগিতার অভিযোগ এনে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করেছে। সৌদি সংবাদ সংস্থা এসপিএ জানিয়েছে, সৌদি আরব সন্ত্রাসবাদ ও চরমপন্থার ঝুঁকি থেকে রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তার স্বার্থে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন ও সীমান্ত বন্ধ করে দিয়েছে। এক সৌদি কর্মকর্তার বরাত দিয়ে এসপিএ আরো জানায়, সৌদি আরব ‘কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন এবং দেশটির সঙ্গে সব ধরনের সীমান্ত, নৌ ও বিমানবন্দরের যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে।’ সৌদি আরবের পক্ষ থেকে বিবৃতিতে বলা হয়, ‘অতীতে কাতার কর্তৃপক্ষ তার অঙ্গীকার রক্ষায় ব্যর্থ হওয়ায় ‘চূড়ান্ত’ এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।’ খবর এএফপি’র। এরপর সংযুক্ত আরব আমিরাত কাতারের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে।  এদিকে মিশরের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দোহার বিরুদ্ধে ‘সন্ত্রাসবাদকে’ মদদ দেয়ার অভিযোগ এনে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করার ঘোষণা দিয়েছে। বাহরাইনের সংবাদ সংস্থা থেকেও বলা হয়েছে, বাহরাইনের নিরাপত্তা বিঘ্নিত, স্থিতিশীলতা নষ্ট ও অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপের কারণে কাতারের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করছে তারা। সৌদি নেতৃত্বাধীন আরব জোট ইয়েমেনে বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে দুই বছর ধরে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে।  জোটের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ইয়েমেনে আল-কায়েদা ও আইএসসহ বিভিন্ন জঙ্গি গোষ্ঠীকে মদদ দেয়ার জন্য তারা কাতারকে বয়কট করছে। দীর্ঘদিন ধরেই কাতারের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদে অর্থায়নের অভিযোগ আনা হচ্ছে।

  • ম্যানচেস্টারে হামলা : নিহত ২২ আহত ৫৯

    যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টারে আত্মঘাতী বোমা হামলায় শিশুসহ ২২ জন নিহত ও ৫৯ জন আহত হয়েছে।স্থানীয় সময় সোমবার ২২টা ৩৫ মিনিটে মার্কিন গায়িকা আরিয়ানা গ্রান্ডের কনসার্ট শেষ হওয়ার পর পরই বিস্ফোরণটি ঘটে।খবর এএফপি’র।পুলিশ জানায়, একজন পুরুষ হামলাকারী এ হামলা চালিয়েছে। এই ঘটনায় সেও প্রাণ হারিয়েছে।চিফ কন্সটেবল ইয়ান হপকিনস বলেন, এটা গ্রেটার ম্যানচেস্টারে এ যাবতকালের সবচেয়ে ভয়াবহ ঘটনা।ঘটনাস্থলে ৬০টি অ্যাম্বুলেন্স মোতায়েন রয়েছে। নগরীর ছয়টি হাসপাতালে আহতদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

  • আফগানিস্তানে নতুন সামরিক অভিযানে ৭১ জঙ্গি নিহত

    সংঘাতপূর্ণ আফগানিস্তানে গত ২৪ ঘন্টার সামরিক অভিযানে ৭১ জঙ্গি নিহত হয়েছে। সোমবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে একথা বলা হয়। খবর সিনহুয়ার।বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ‘আফগান জাতীয় প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা বাহিনী কিছু এলাকা জঙ্গি ও শত্রু মুক্ত করতে সন্ত্রাস বিরোধী ১২টি অভিযান চালায়। এরফলে গত ২৪ ঘন্টায় ৭১ জঙ্গি নিহত হয়।’অভিযান চলাকালে আরো ৪০ জঙ্গি আহত এবং সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়। নানগড়হড়, হেলমান্দ, লঘমান, ফারাহ, কুন্দুজ, ঘর, ওয়ারদাক ও জাবুল প্রদেশের বিভিন্ন এলাকায় এসব অভিযান চালানো হয়।তবে এ সময়ে নিরাপত্তা বাহিনীর কোন সদস্য হতাহত হয়েছে কিনা সে ব্যাপারে বিবৃতিতে কিছু বলা হয়নি।

  • আফগানিস্তানে তালেবান হামলায় ২০ পুলিশ নিহত

    আফগানিস্তানের দক্ষিণাঞ্চলে রোববার ভোরে কয়েকটি নিরাপত্তা চৌকিতে তালেবান যোদ্ধাদের হামলায় অন্তত ২০ পুলিশ নিহত হয়েছে। কর্মকর্তারা একথা জানান।প্রাদেশিক গভর্ণর বিসমিল্লাহ্ আফগানমাল বার্তা সংস্থা এএফপি’কে বলেন, ‘আজ সকালে একদল তালেবান যোদ্ধা ভারী ও হালকা অস্ত্র নিয়ে সমন্বিত হামলা চালায়। এতে ২০ পুলিশ নিহত হয়েছে। জাবুল প্রদেশের শাহ্ জয় জেলার কয়েকটি চৌকিতে এ হামলা চালানো হয়।

  • ইরানে প্রাথমিক ফলাফলে রুহানি পুনঃনির্বাচিত

    ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি দ্বিতীয় মেয়াদে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন। এখনো চূড়ান্ত ঘোষণা দেয়া না হলেও দেশটির প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে শনিবার ঘোষিত প্রাথমিক ফলাফল থেকে সে আভাসই পাওয়া গেছে। তেহরানের সাথে বিশ্বের অন্যান্য দেশের সম্পর্ক আরো জোরদারে তার প্রচেষ্টার প্রতি ভোটার সমর্থন জানানোতেই তিনি এ জয় পেতে যাচ্ছেন। খবর এএফপি’র।নির্বাচন কমিটির প্রধান আলী আসগর আহমাদি ইরানের রাষ্ট্রনিয়ন্ত্রিত টেলিভিশনে বলেন, ভোট গণনা প্রায় করা শেষ হয়েছে। এতে দেখা যাচ্ছে রুহানি ২ কোটি ২৮ লাখ ভোট পেয়ে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর চেয়ে অনেক ব্যবধানে এগিয়ে রয়েছেন। রুহানির প্রতিদ্বন্দ্বী কট্টরপন্থী প্রার্থী ইব্রাহিম রাইসি ১ কোটি ৫৫ লাখ ভোট পেয়েছেন। তবে রাইসি ভোটে কারচুপির অভিযোগ করেছেন। এক্ষেত্রে তার অভিযোগ রুহানির সমর্থকেরা ভোটকেন্দ্রে নির্বাচনী আইনবহির্ভূত নানা অপপ্রচার চালায়। ৫৬ বছর বয়সী রাইসি রক্ষণশীল বলে পরিচিত।বর্তমান প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি (৬৮) নির্বাচনী প্রচারে উদার ও বর্হিমুখী দৃষ্টিভঙ্গির ইরান গড়ে তোলার প্রতিশ্রুতি দেন। পরমাণু চুক্তির ক্ষেত্রে তার সফলতাকে আরও সাফল্যের দিকে এগিয়ে নেওয়ার অঙ্গীকার করেন।২০১৫ সালে পরমাণু শক্তিধর ছয় দেশ যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীন, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স ও জার্মানির সঙ্গে ইরানের পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ চুক্তির ফলে ইরান একটি নির্দিষ্ট সীমারেখা পর্যন্ত পরমাণু কর্মসূচি চালালেও পারমাণবিক অস্ত্র বানাতে পারবে না। এর বিনিময়ে ইরানের ওপর আরোপিত অর্থনৈতিক অবরোধ উঠে যায়।তবে যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প নির্বাচিত হওয়ার পর এই চুক্তির বিরোধিতা শুরু করেন।

  • পাপুয়া নিউ গিনিতে জেলখানায় গুলিতে ১৭ বন্দি নিহত

    পাপুয়া নিউ গিনির একটি জেলখানায় গুলিতে ১৭ বন্দি নিহত হয়েছে। বন্দিরা জেল ভেঙ্গে পালানোর চেষ্টাকালে এ ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় ৫৭ বন্দি পালিয়ে গেছে। সোমবার খবরে একথা বলা হয়েছে।প্রশান্ত মহাসাগর উপকূলীয় দেশটির দ্বিতীয় বৃহত্তম নগরী লায়েরের বুইমো জেলখানা ভেঙ্গে শুক্রবার সেখানকার বন্দিরা পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় কারারক্ষীরা তাদের লক্ষ্য করে গুলি চালায়। খবর এএফপি’র।পুলিশের বরাত দিয়ে পিএনজি পোস্ট-কোরিয়ার ও ন্যাশনাল নিউজপেপার এই ঘটনায় ১৭ বন্দির মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করেছে। এছাড়াও এতে অপর তিন বন্দিকে পাকড়াও করা হয়েছে এবং ৫৭ জন পলাতক রয়েছে।লায়ের পুলিশ মেট্রোপলিটন কমান্ডার চিফ সুপারিন্টেন্ডেন্ট এন্থনি ওয়াগাম্বি জুনিয়র বলেন, ‘পলাতকদের অধিকাংশকেই গুরুতর অপরাধের জন্য গ্রেফতার করা হয়েছিল। তারা বিচারের অপেক্ষায় ছিল।’

  • ইতালিতে ৪৮০ শরণার্থী ও ৭টি লাশ উদ্ধার

    ভূমধ্যসাগর থেকে শনিবার ৪৮০ অভিবাসন প্রত্যাশী ও শরণার্থীকে উদ্ধার করা হয়েছে। তারা উত্তর আফ্রিকা থেকে বিপদ সংকুল জলপথ পাড়ি দিয়ে ইউরোপ যাওয়ার চেষ্টা করছিল। এ সময় সাতটি লাশও উদ্ধার করা হয়। রোববার ইতালির কোস্টগার্ড একথা জানায়।ডিঙ্গী নৌকাটি থেকে ৪৮০ জনের মতো শরণার্থীকে উদ্ধার করা হয়। উদ্ধার অভিযানে কোস্টগার্ডের চারটি নৌযান, ইতালির একটি নৌ-জাহাজ ও ওহাইও বাণিজ্যিক জাহাজ অংশ নেয়।খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।অভিযানকালে সাতটি লাশ উদ্ধার করা হয়।ইতালির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, এ বছর ভূমধ্যসাগর থেকে ৪৫ হাজারের বেশি লোককে উদ্ধার করে ইতালিতে নিয়ে আসা হয়। ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশন জানায়, জানুয়ারি মাস থেকে প্রায় ১ হাজার ৩০৯ জন বিপজ্জনক পথ পাড়ি দিতে গিয়ে মারা গেছে বা তাদের মৃত্যুর আশঙ্কা করা হচ্ছে।এসব শরণার্থীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক লোক নাইজেরিয়া থেকে এসেছে। এরপরের স্থানেই আছে বাংলাদেশ, গিনি ও আইভরিকোস্ট।

  • ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা উ. কোরিয়ার: কঠোর অবরোধের আহ্বান ট্রাম্পের

    উত্তর কোরিয়া রোববার ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে। এই ঘটনাকে দক্ষিণ কোরিয়ার নব নির্বাচিত প্রেসিডেন্টের জন্য একটি পরীক্ষা হিসেবে দেখা হচ্ছে। তিনি দুদেশের মধ্যে সম্পর্ক স্থাপনের পক্ষে। এদিকে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উত্তর কোরিয়ার ওপর আরো কঠোর অবরোধের আহ্বান জানিয়েছেন।দক্ষিণ কোরিয়ার জয়েন্ট চিফ অব স্টাফ বলেন, ক্ষেপণাস্ত্রটি ৭শ’ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে জাপান সাগরে পড়ে।মার্কিন প্রশান্ত মহাসাগরীয় কমান্ড জানায়, এটিকে আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র বলে মনে হচ্ছে না।এদিকে দক্ষিণ কোরিয়ার নব নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট মুন জায়ে-ইন এই পরীক্ষাকে ‘বেপরোয়া উসকানি’ হিসেবে অভিহিত করেছেন। তিনি জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টাদের সঙ্গে জরুরি বৈঠক করছেন। বুধবার প্রেসিডেন্ট হিসেবে মুনের অভিষেক হয়। খবর এএফপি’র।এই ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে কঠোর অবরোধের আহ্বান জানিয়েছেন।হোয়াইট হাউসের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘ক্ষেপণাস্ত্রটি রুশ ভূখ-ের খুব কাছেই আঘাত হেনেছে। এটি রাশিয়া ও জাপানের কাছে গিয়ে পড়েছে। রাশিয়া এতে খুশি হবে না বলেই মনে করছেন প্রেসিডেন্ট।’এদিকে এই ঘটনার পর উত্তর কোরিয়ার পরীক্ষিত মিত্র দেশ চীনও প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে। চীন সকল পক্ষের প্রতি ‘ধৈর্য’ ধরার আহ্বান জানিয়েছে। এই ঘটনার প্রেক্ষিতে অঞ্চলটিতে উত্তেজনা বেড়ে যেতে পারে বলে হুঁশিয়ার করেছে বেইজিং।

  • বাংলাদেশ হাইকমিশন, নয়া দিল্লী Spouses Club এর Merit Award 2017

    আজ (০৬ মে ২০১৭) বাংলাদেশ হাইকমিশন, নয়া দিল্লী Spouses Club আয়োজিত, কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরসন্তান, ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে এক প্রতিযোগিতামূলক Merit Award 2017 অনুষ্ঠান হাই কমিশনের মৈত্রী হলেঅনুষ্ঠিত হয়। বেগম তোফা জামান আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগীতা শেষে পুরস্কার বিতরণঅনুষ্ঠানে বিজয়ীদের মধ্যে Merit Award প্রদান করেন মান্যবর হাইকমিশনার সৈয়দ মোয়াজ্জেম আলী।

  • দুই বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন মের্কেল

    জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মের্কেল দুই বছরের মধ্যে এই প্রথমবারের মতো রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে বৈঠকে বসতে কাল মঙ্গলবার তিনি সেখানে যাচ্ছেন। কৃষ্ণ সাগর উপকূলীয় পর্যটন নগরী সোচিতে দু’নেতার মধ্যে বৈঠকটি হবে।জার্মান সরকারের মুখপাত্র স্টিফেন সাইবাৎ বলেন, তাদের মধ্যে দুটি বৈঠক হবে। বৈঠকের পর তারা সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাব দিবেন। খবর বার্তা সংস্থা তাস’র।সাইবাৎ জানান, জুলাই মাসে হাম্বার্গে জি২০ শীর্ষ সম্মেলনের প্রস্তুতির অংশ হিসেবেই মের্কেল রাশিয়া সফর করছেন।যদিও দু’নেতার মধ্যে ইউক্রেন সংকট, সিরিয়া যুদ্ধ ও লিবিয়া পরিস্থিতির পাশাপাশি দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক নিয়েও আলোচনা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

  • যে কোন সময়ে পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর হুমকি উত্তর কোরিয়ার

    উত্তর কোরিয়া সোমবার হুঁশিয়ার করে বলেছে, তাদের নেতার নির্দেশে তারা যে কোন সময়ে যে কোন স্থানে পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালাবে। কোরীয় উপদ্বীপে চলমান উত্তেজনাকে আরো উস্কে দিতে এটি উত্তর কোরিয়ার সর্বশেষ বাগাড়াম্বর।এদিকে এ অঞ্চলে গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই তীব্র উত্তেজনা চলছে। মনে করা হচ্ছে উত্তর কোরিয়া দীর্ঘপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ কিংবা ষষ্ঠ পরমাণু পরীক্ষা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে। অন্যদিকে ওয়াশিংটনও এর জবাবে সামরিক পদক্ষেপ নেয়ার সম্ভাবনা নাকচ করে দিচ্ছে না। এ প্রেক্ষাপটে উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের একজন মুখপাত্র বলছেন, যুক্তরাষ্ট্রের যে কোন পদক্ষেপের জবাব দিতে তার দেশ সম্পূর্ণ প্রস্তুত।উত্তর কোরিয়া গত ১১ বছরে পাঁচবার পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে। ব্যাপকভাবে ধারণা করা হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রে আঘাত হানতে সক্ষম পরমাণু বোমা বহনকারী এরকম দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র তৈরিতে দেশটি যথেষ্ট এগিয়ে গেছে।

  • যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য-পশ্চিমাঞ্চলে ঝড়ে অন্তত ১৪ জনের প্রাণহানি

    যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য-পশ্চিমাঞ্চলে ভয়াবহ ঝড়ে সপ্তাহান্তে অন্তত ১৪ জন মারা গেছে। কর্মকর্তারা একথা জানান। সোমবার পূর্বাঞ্চলে প্রচ- শক্তিশালী বাতাস ও বিক্ষিপ্ত টর্নেডো আঘাত হেনেছে। খবর এএফপি’র।বৈরি আবহাওয়ায় বাড়িঘর ধ্বংস হয়ে গেছে, গাড়ি উল্টে গেছে ও গাছ উপড়ে পড়েছে।জাতীয় আবহাওযা সার্ভিস টেক্সাসে অন্তত চারটি টর্নেডো আঘাত হানার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

  • ট্রাম্পের ফোন ট্যাপিংয়ের তদন্ত চায় হোয়াইট হাউস

    আমেরিকায় বিগত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারাভিযানের সময় ওবামা প্রশাসন ক্ষমতার অপব্যবহার করেছিল কিনা, তা মার্কিন কংগ্রেসকে পরীক্ষা করে দেখতে আহ্বান জানিয়েছে হোয়াইট হাউস কর্তৃপক্ষ।এর আগে, গত শনিবার বিদায়ী প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার বিরুদ্ধে তার ফোন ট্যাপ বা ফোনে আঁড়ি পাতার অভিয়োগ তোলেন বর্তমান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। যদিও এর পক্ষে তিনি কোন প্রমাণ দেননি।তবে সাবেক প্রেসিডেন্ট ওবামার একজন মুখপাত্র বলেছেন, অভিযোগ মিথ্যা। তিনি কখনো কোন মার্কিন নাগরিকের ওপর নজরদারির নির্দেশ দেননি।ইতিমধ্যে বিগত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রাশিয়ার ভূমিকা নিয়ে কংগ্রেস একটি তদন্ত করছে। ট্রাম্পের প্রেস সেক্রেটারি শন স্পাইসার বলেছেন, সেই তদন্তে এটাও দেখা উচিৎ যে সাবেক প্রেসিডেন্ট তার ক্ষমতার অপব্যবহার করেছিলেন কিনা।এদিকে, বেশ কজন রিপাবলিকান এবং ডেমোক্রেট রাজনীতিক প্রমাণ হাজির করতে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। কিন্তু এখনও পর্যন্ত তিনি বা তার কোনও মুখপাত্র কোন প্রমাণ দেননি।  

E-mail : info@dpcnews24.com / dpcnews24@gmail.com

EDITOR & CEO : KAZI FARID AHMED (Genarel Secratry - DHAKA PRESS CLUB)

Search

Back to Top